কিরফার যত গুণ – Shorobor
সরোবর, একটি তারামানুষ... অন্তত

কিরফার যত গুণ

দারুচিনি – হাজার বছর ধরে ব্যবহার হয়ে আসা এক মসলা বা ঔষধি! মহামূল্যবান ছিল এই দারুচিনি কোনো এক সময়। কালের পরিক্রমায় যোগাযোগ ব্যবস্থা ও চাষবাস উন্নত হওয়ায় দারুচিনির মূল্য এখন হাতের নাগালে।

খাবারে স্বাদ ও গন্ধ যোগ করা ছাড়াও দারুচিনির আরো অন্য কাজও রয়েছে মানব শরীরের জন্য।

ডায়াবেটিস রোগীরা নিয়মিত দারুচিনি খেলে উপকার পাবেন। রক্তে থাকা অতিরিক্ত শর্করার পরিমাণ কমাতে সহায়ক এই দারুচিনি।

আমাদের মুখগহ্বরের ভেতরে হাজার হাজার ব্যাকটেরিয়ার বাস। এসব ব্যাকটেরিয়ার ক্ষতি রুখে দিতে দারুচিনি বেশ কার্যকর। এজন্যই চুইংগাম, টুথপেষ্ট, মাউথওয়াশ ইত্যাদিতে দারুচিনি ব্যবহার করা হয়।

যারা স্বাস্থ্যসচেতন সক্কাল সক্কাল খালি পেটে এক গ্লাস লেবু, আদা, মধু দিয়ে গরম পানি পান করেন অতিরিক্ত ওজন ঝরিয়ে ফেলতে তারা সামান্য দারুচিনি গুঁড়ো যোগ করে নিতে পারেন এই পানীয়ের সাথে। কিছুদিন এভাবে খাওয়ার পরেই বুঝবেন আসল ম্যাজিক। কারণ দারুচিনি হজম ক্রিয়া উন্নত করে ওজন কমাতে ভূমিকা রাখে।

অন্ত্রের ব্যাকটেরিয়া জনিত অসুখ, ক্যান্সার, দুর্বল স্মৃতিশক্তি, ফাংগাল ইনফেকশন, মাংশপেশীর প্রদাহ, বাত ও অস্টিওপরোসিস সহ নানান অসুখ সারিয়ে তুলতে পারার মত গুণাগুণ আল্লাহ সুবহানাহু ওয়াতাআ’লা এই দারুচিনির মাঝে দিয়ে দিয়েছেন।

সবকিছু সবিস্তারে লিখতে গেলে রাত ভোর হয়ে যাবে আর হাজার হাজার শব্দে রচিত হয়ে যাবে সুবিশাল রচনা। তারচেয়ে বরং সরোবরের দারুচিনি গুঁড়ো – কিরফা খাওয়াই সহজ। বিভিন্ন ডিজার্ট, তরকারি, চা-পানীয় ইত্যাদিতে দিয়ে খেতে পারেন কিরফা গুঁড়ো।

Share this post